http://csb24.com/id/85511/

ঢাকা, , শুক্রবার, ৩ জুলাই ২০২০

জনস্বার্থে সুদৃষ্টি কামনা…

প্রকাশ: ২০২০-০৬-০৮ ১৩:৩৮:১৫ || আপডেট: ২০২০-০৬-০৮ ১৫:০২:৫৩

পলাশ বড়ুয়া:
ছবি গুলো কক্সবাজারের উখিয়া রত্নাপালংয়ের ৮নং ওয়ার্ড টেকপাড়া এলাকা থেকে ধারণ করা। যেখানে অসংখ্য চৌধুরীসহ নানা পেশার মানুষের বসবাস।

যদিও প্রতি বৎসর সরকার ইউনিয়ন পরিষদ/উপজেলা/জেলা/বিভাগ/রাষ্ট্রীয় বাজেটে নতুন সড়ক নির্মাণ, পুরনো গুলো সংস্কারসহ কত কিছু উল্লেখ করে বাজেট পাশ ও বরাদ্ধ করে থাকে।

এদিকে কেবল জনপ্রতিনিধি নয়, স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরসহ সংশ্লিষ্ট দায়িত্বশীলদেরও দেখা যায় দিনরাত এক করে কাজ করতে। কিন্তু কাজের যেমন শেষ নেই। তেমনি গ্রামীণ সড়ক গুলোর উল্লেখযোগ্য সংস্কারও চোখে পড়ে না।

শুধু এই চিত্র নয়, দেশ ভেসে গেলেও তাতে আমার/আপনার কি? সবার কাছে ত এখন ট্রেন্ড হয়ে গেছে অনিয়ম ঢাকা দিয়ে দালালি কিংবা ওইসব সাম্রাজ্যবাদীদের তেলে ভাসাতে পারলে সবার চোখে ভালো থাকার ব্যাপারটা ।

কখনো দেশপ্রেম, নৈতিকতা ও পেশাদারিত্বের জায়গা থেকে মাদক, অনিয়ম, দূর্নীতির বিরুদ্ধে নিউজ করলে কেউ বেতন বন্ধ করে দেয়, কেউ চাকরি খাওয়ার ভয় দেখায়, কেউ বীচি বের করে ফেলার হুমকি দেয়, কেউ আমার অভিভাবকদের কাছেও অভিযোগ করে। তবে এখনো স্থির এবং অক্ষত আছি। তাই নিউজ করতে পারিনি জনদূর্ভোগের চিত্রটি নিয়ে। দু:খিত ভুক্তভোগী শহীদুল্লাহ ভাই।

এমনি সবাই বলে অমুক মাদক ব্যবসায়ী, অমুক দূর্নীতিবাজ। যদি কোন অপরাধীর বিরুদ্ধে তথ্যের ভিত্তিতে বস্তুনিষ্ট সংবাদ পরিবেশন হয়, তখন সে অপরাধীর ব্যাপারে সুপারিশকারীর সংখ্যা কম দেখা যায় না। কেউ বলে সে এই কাজ করে না। সে বৈধ ব্যবসা করে শত কোটি টাকার সম্পদের মালিক হয়েছে। আবার কেউ বলে সে তমুক নেতার ভাই বা কাছের লোক। তার অনেক লম্বা আরো কত কিছু।

তারপরও জনস্বার্থে সুদৃষ্টি কামনা করছি দায়িত্বশীলদের প্রতি…