ঢাকা, , শনিবার, ৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯

খালেদা-তারেকের সামনে ‘বালিশ-পর্দার’ দুর্নীতি তুলনাহীন : তথ্যমন্ত্রী

প্রকাশ: ২০১৯-০৯-০৭ ২১:০১:১৮ || আপডেট: ২০১৯-০৯-০৭ ২১:০১:২২

অনলাইন ডেস্ক: বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া ও তার ছেলে তারেক রহমানের দুর্নীতির সামনে ‘বালিশ-পর্দার’ দুর্নীতি তুলনাহীন মন্তব্য করেছেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ। আজ শনিবার দুপুরে চট্টগ্রাম নগরের থিয়েটার ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে আয়োজিত রবি-দৃষ্টি বিতর্ক প্রতিযোগিতার সমাপনী অনুষ্ঠানে এ মন্তব্য করেন তিনি।

অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া কালো টাকা সাদা করেছেন। তাদের অর্থমন্ত্রীও কালো টাকা সাদা করেছিলেন। তারেক রহমানের দুর্নীতির বিরুদ্ধে এফবিআই এসে বাংলাদেশে সাক্ষ্য দিয়ে গেছে। যে কারণে তার ১০ বছর সাজা হয়েছে। আরাফাত রহমানের দুর্নীতি সিঙ্গাপুরে ধরা পড়েছে। সেটির সঙ্গে বালিশ আর পর্দা দুর্নীতির কোনো তুলনা হয় না।’

হাছান মাহমুদ বলেন, ‘বালিশ কিংবা পর্দা দুর্নীতি ঘটেছে কিছু কর্মকর্তার মাধ্যমে। সেখানে কোনো রাজনৈতিক নেতা বা জনপ্রতিনিধির সংশ্লেষ নেই। এই দুটি দুর্নীতির ব্যাপারেই সরকার অত্যন্ত কঠোর অবস্থানে আছে।’

তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী দুর্নীতির ব্যাপারে শূন্য সহনশীলতা নীতি অনুসরণ করছেন। বালিশ দুর্নীতির সঙ্গে যারা যুক্ত তাদের বিরুদ্ধে ইতিমধ্যেই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। পর্দা দুর্নীতির সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়া শুরু হয়েছে। অবশ্য তারাও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি পাবেন।’

বিএনপির সমালোচনা করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, যারা দুর্নীতিতে দেশকে পরপর চ্যাম্পিয়ন বানিয়ে বিশ্বসম্প্রদায়ের কাছে বাংলাদেশকে লজ্জিত করেছিল দুর্নীতি নিয়ে প্রশ্ন করার অধিকার সেই বিএনপির নেই। বর্তমান সরকার দুর্নীতি কঠোর হস্তে দমন করতে কাজ করছে।

দৃষ্টির সভাপতি মাসুদ বকুলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন রবির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মাহতাব উদ্দিন আহমেদ, ইন্ডিপেনডেন্ট ইউনিভার্সিটির সদস্যা সাফিয়া গাজী রহমান, রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের সদস্য শামসুদ্দিন আহমেদ চৌধুরী, কর্ণফুলী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শামসুদ্দিন তাবরীজ প্রমুখ।