ঢাকা, , শুক্রবার, ১০ মে ২০১৯

বাংলাদেশি ৫৬ পাসপোর্টসহ ২৪ রোহিঙ্গা আটক

প্রকাশ: ২০১৯-০৫-১০ ২১:৪৭:৫৫ || আপডেট: ২০১৯-০৫-১০ ২১:৪৮:০৩

অনলাইন ডেস্ক: বাংলাদেশি মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট (এমআরপি) নিয়ে বিদেশে পালানোর চেষ্টাকালে ২৪ রোহিঙ্গাকে আটক করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।

শুক্রবার ভোররাতে রাজধানীর খিলক্ষেত মধ্যপাড়া এলাকার কহিনুর ভিলা নামে একটি বাসায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়। তাদের মধ্যে নারী ও শিশু রয়েছে। ওই বাড়ি থেকে বাংলাদেশি ৫৬টি পাসপোর্ট উদ্ধার হয়েছে। এ ঘটনায় রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দেওয়ার অভিযোগে বাড়ির মালিকের ছেলে কাজল ও আইয়ুব নামে এক দালালকে আটক করেছে পুলিশ।

এ ব্যাপারে ডিবির উপ-কমিশনার (পশ্চিম) মোখলেসুর রহমান বলেন, আটককৃতদের কাছ থেকে ৫৬ টি বাংলাদেশি পাসপোর্ট উদ্ধার করা হয়েছে। তারা দালালের মাধ্যমে ঢাকার ঠিকানা দিয়ে পাসপোর্ট বানিয়ে মালেয়েশিয়া যাওয়ার চেষ্টা করছিল। সংঘবদ্ধ একটি দালাল চক্র তাদেরকে ঢাকায় এনেছে।

তিনি বলেন, এসব রোহিঙ্গারা কিভাবে পাসপোর্ট পেল তার তদন্ত চলছে। এখানো যারাই জড়িত থাক তাদেরকে খুঁজে বের করা হবে। বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তবে পাসপোর্টগুলো সঠিক বা জাল কিনা তা এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

ডিবি সূত্র জানিয়েছে, আটক ২৪ রোহিঙ্গা সদস্যকে গত এক সপ্তাহ ধরে কক্সবাজার রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে ঢাকায় এনে খিলক্ষেতের একটি তিন তলা বাড়িতে রাখা হয়েছিল। বিমানবন্দরের কাছাকাছি হওয়ায় এই বাড়িটিই বেছে নিয়েছিল তারা। তাদেরকে একটি সংঘবদ্ধ দালাল চক্র এখানে এনে রেখেছিল। মালেয়েশিয়া পাঠানোর আগে এই বাসাতে তাদেরকে বাংলা ভাষা শেখানোর চেষ্টা চলছিল। মুলত তাদেরকে শিগগিরই মালেয়েশিয়া পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছিল।

থানা পুলিশ সূত্র জানায়, ভোর রাতে ডিবির একটি টিম মধ্যপাড়ার একটি বাসায় অভিযান চালায়। এর আগে তারা থানা পুলিশকে অভিযানের বিষয়টি জানায়। পরে সেখানে অভিযান চালিয়ে শিশুসহ ২৪ রোহিঙ্গা নারী-পুরুষকে আটক করেছে। এসময় সেখান থেকে আইয়ুব নামে এক দালালকে আটক করে ডিবি। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ওই বাসার মালিকের ছেলেকেও আটক করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গণহত্যা ও নির্যাতনের মুখে ২০১৭ সালের সেপ্টেম্বর মাস থেকে মিয়ানমার থেকে প্রায় সাড়ে ৭ লাখ রোহিঙ্গা পালিয়ে আশ্রয় নিয়েছে বাংলাদেশ। তবে তাদেরকে নিয়ে নানান ভয়ঙ্কর খেলা খেলছে একটি সংঘবদ্ধ চক্র। বিশেষ করে এসব রোঙ্গিদের মাদক কারবারে উদ্বুদ্ধ করার পাশাপাশি জঙ্গিবাদেও জড়ানোর চেষ্টা রয়েছে চক্রের। এর আগে এমন অনেক রোহিঙ্গা সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ ও র‌্যাব।

Skip to toolbar Log Out